হে সৃষ্টিকর্তা - O Creator ~ WriterMosharef

হে সৃষ্টিকর্তা - O Creator


 

হে সৃষ্টিকর্তা, 


তোমার অপরূপ সব সৃষ্টির মধ্যে সুন্দরতম এক সৃষ্টি আমি নারী..! পুরুষের বাম পাজরের হাড় থেকে পূর্ণতা দিয়ে সৃষ্টি করেছো আমায়। দিয়েছ রূপ, দিয়েছ মায়া, দিয়েছ মাতৃত্ব...। আমার উরশেই মানবকুল কে প্রসারিত করছো । পুরুষের  উপর আমার আধিপত্য দিয়ে দিয়েছ,করেছো আমায় "রাব্বাতুল বাইত" ।


আমি নারী..!  একটা সন্তানের আশায় ত্যাগ করে থাকি  নিজের সৌন্দর্য, খাওয়া ঘুম ভুলে গিয়ে রাতের পর রাত কাটিয়ে দিয়েই। একটু সচ্ছলতার জন্য আমি ঘরের গন্ডি পেরিয়ে বাইরে এসেছি । আমায় কেউ মানুষের কাতারে রাখেনি। দিতে পারেনি সম্মান ।ভোগের বস্তু মনে করে একা রাস্তায় আমার উপর ঝাপিয়ে পড়ে সেই সব পুরুষ...যাদের একটা অংশ থেকে নাকি আমার সৃষ্টি,যাদের উপর দিয়েছিলে তুমি আমার নিরাপত্তা..? 


হে প্রভু! পুরুষশাসিত সমাজ বললো,"মেয়ে তোমার পোশাকের ঠিক নাই। শরীর দেখিয়ে পুরুষের মাথা খাও?  এমন তো হবেই  । " আমি মেনে নিয়েছি প্রভু । 


আমি সেই নারী প্রভু,  যার  আপাতমস্ত বোরকায় আবৃত ছিলো তবুও তাদের নজর এড়ায়নি । ঝাপিয়ে পড়েছিলো আমার উপরও...! এখানেও কি আমার পোশাকের দোষ প্রভু ? 


তখন পুরুষেরা বললো, "মেয়ে হয়েছো ঘরে থাকো, ঘর সামলাও, বাইরে তোমার কি কাজ?"

হে প্রভু!  আমি সেটাও মানলাম । ঘরে থাকলাম,কিন্তু এখানেও আমাকে নিরাপত্তা দেয়নি কেউ। আপন পিতা, ভাই, চাচা, দাদা তারাও আমার মধ্যে যৌন লালসা খুঁজেছে । 


হে প্রভু !  আমি ৬ মাস বয়সী সেই মেয়ে শিশু,যার উপর ঝাপিয়ে পড়ে মেটাতে চেয়েছিল তাদের লালসা। কেড়ে নিয়েছিল ছোট্ট জীবন।

আমি ছয় বছর বয়সী সেই মেয়ে, যার যৌনাঙ্গ ব্লেট দিয়ে কেটে পিশাচের মতো মেতে উঠেছিলো তারা.. যাদের একাংশ থেকে নাকি আমার সৃষ্টি, আমার নিরাপত্তা ।

আমি আশি বছর বসয়ী সেই বৃদ্ধ নারী । ঠিক ভাবে চোখে দেখতে পারি না, হাটতে পারি না,।প্রভু আমাকেও তারা ছাড়েনি..!!  রক্তাক্ত করেছে আমাকেও।। 


যাদের দিয়েছিলে তুমি আধিপত্য, দিয়েছিলে নারীর নিরাপত্তা... তারাই আজ নারীকে নাম দিলো "ধর্ষিতা ","নষ্টা",। তারাই আজ অপনাম করে সেই গর্ভ কে,যে গর্ভে তার জন্ম। তারাই প্রশ্ন তোলে নারীর সতীত্বে...!!


হে প্রভু....!  রক্ষকই যখন আজ ভক্ষক, নিয়ে নাও এই সতীত্ব। নিষিদ্ধ করো নারী জন্ম.... নিষিদ্ধ করো !! 


কথায়ঃ- ফারিয়া আক্তার মোহনা

Previous
Next Post »